প্রধানমন্ত্রী আবে তার পঞ্চম মন্ত্রিসভা সদস্যদের নাম ঘোষণা করলেন

Print Friendly and PDF

জা পা ন

রাহমান মনি

এক ডজন নতুন মুখ নিয়োগ দিয়ে জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে তার বিশ সদস্য বিশিষ্ট মন্ত্রিপরিষদের নাম ঘোষণা করেছেন। ২ অক্টোবর ‘১৮ মঙ্গলবার তার স্বীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলন করে এ ঘোষণা দেন।
গত ১৯ সেপ্টেম্বর ‘১৮ আবে লিবারেল ডেমোক্র্যাটিক পার্টির নেতা হিসেবে পুনর্নির্বাচিত হওয়ার পর এই পদক্ষেপ নেয়া হয়।
নতুন মন্ত্রিসভায় যেমন আবে ১২ জন নতুন মুখ নিয়োগ দিয়েছেন তেমনি অভিজ্ঞতাসম্পন্ন সদস্যদের বাদ দিতে হয়েছে।
নতুন মুখদের মধ্যে তাকাশি ইয়ামাশিতাকে (৫৩) বিচার মন্ত্রণালয় এবং তাকেশি ইওয়াইয়া’র  (৬১) হাতে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মতো গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব অর্পণ করেন।
এছাড়া নতুনদের মধ্য থেকে মাসাহিকো শিবায়ামাকে (৫২) শিক্ষা, সংস্কৃতি, ক্রীড়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়, মাসাতোশি ইশিদাকে (৬৬) অভ্যন্তরীণ সম্পর্ক উন্নয়ন, তাকামোরি ইয়োশিকাওয়াকে (৬৭) কৃষি, বন ও মৎস্য মন্ত্রণালয়ের দায়িত্ব প্রদান করা হয়।
আসন্ন ২০২০ অলিম্পিক প্যারা অলিম্পিক উপলক্ষে বিপুলসংখ্যক বিদেশির আগমন ঘটবে জাপানে। জাপান প্রবেশে তাদের অনুমতি বিচার মন্ত্রনালয়ের অধীনে। সংবাদ সম্মেলনে আবে বলেন, ইয়ামাশিতা নতুন মুখ হলেও তিনি দক্ষতার সঙ্গে তা পরিচালনা করতে পারবেন বলে আমি আশাবাদী।
সংবাদ সম্মেলনে আবে বলেন, আজ সকালে ক্ষমতাসীন জোটের অন্যতম শরীক দল ‘কোমেইতো’ পার্টি প্রধান নাতসুও ইয়ামাগুচি’র সঙ্গে আলোচনা করেই মন্ত্রীদের নিয়োগ দেয়া হয়েছে এবং কোমেইতো পার্টি থেকে পূর্ণ সহযোগিতার আশ্বাস দেয়া হয়েছে।
মন্ত্রিসভার ব্যাপক পরিবর্তন আনা হলেও আবে মুখ্য কয়েকটি পদ অপরিবর্তিত রেখেছেন।
ক্ষমতাসীন দলের বর্ষীয়ান নেতা প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী, আবে প্রশাসনের ডেপুটি প্রধানমন্ত্রী  তারো আসো (৭৮) কে তার স্বপদে বহাল রেখেছেন। অতিরিক্ত হিসেবে তারো আসো ফিন্যান্স এবং ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিসের দায়িত্বও পালন করবেন। এর আগেও তিনি একই দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। তারো আসো (৭৮) আবে কেবিনেটের সবচেয়ে বর্ষীয়ান মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্বরত।
এছাড়া পররাষ্ট্রমন্ত্রী তারো কোনো (৫৫), ইকোনমি ট্রেড অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিমন্ত্রী হিসেবে হিরোশিগে সেকো (৫৫), অর্থনৈতিক রেভিটেলাইজেশন মিনিস্টার তোশিমিতসু মোতেগি (৬২) নিজ নিজ মন্ত্রণালয় ধরে রাখতে সক্ষম রয়েছেন।
সব মিলিয়ে আবে কেবিনেটে মোট ২০ জন সদস্য রয়েছেন। এর মধ্যে ১ জন মাত্র নারী সদস্য সাতসুকি কাতায়ামা (৫৯) অর্থাৎ ৫% নারী সদস্য রয়েছেন। আধুনিক জাপানে যা বড়ই বেমানান। বর্তমান কেবিনেট-এ যা ২ জন রয়েছেন। গত ২০১৭ সালের জাতীয় নির্বাচন মোট আসনের ১০.১% নারী সদস্য জয়লাভে সক্ষম হন।
ছবি : ইন্টারনেট থেকে

সাপ?তাহিক পতিবেদন

প্রবাসে
 মতামত সমূহ
পিছনে 
 আপনার মতামত লিখুন
English বাংলা
নাম:
ই-মেইল:
মন্তব্য :

Please enter the text shown in the image.